লেবু দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়

লেবু দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়

লেবু দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়: খাবারে রুচি আনা, সালাদে ব্যবহার বা ভিটামিন সি’র সবচেয়ে ভালো উৎস হিসেবে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে লেবু দারুণ কাজ করে, সে কথা সবারই জানা। তবে রূপচর্চাতেও লেবু নানানভাবে ব্যবহার হয় এবং সেটা বেশ কার্যকরভাবে ।

লেবু দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়

লেবু দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়

স্বাস্থ্যকথার আজকের পর্বে তাই সৌন্দর্য-চর্চায় লেবুর নানান ব্যবহার সম্পর্কে লেখা হলো ।

যে বিষয় গুলো আলোচনা করা হয়েছে

  1. শরীরের কালোদাগ দূর করতেঃ
  2. খুশকি থেকে বাচতেঃ
  3. ত্বকের উজ্জ্বলতায়ঃ
  4. দাঁত পরিষ্কার করতেঃ
  5. নরম ঠোঁট পেতেঃ
  6. শরীরের কালোদাগ দূর করতেঃ

কনুইসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গা যেমন হাঁটুর কাচে কালচে দাগের সমস্যা অনেকেরই আছে। এই দাগ হালকা করতে এসব জায়গায় লেবু ও লবণের মিশ্রণ ঘষুণ। লেবুর সাইট্রিক অ্যাসিড এক্ষেত্রে চমৎকার কাজ করে , ধীরে ধীরে কালচে ভাব চলে যায় ।

খুশকি থেকে বাচতেঃ

খুশকি থেকে বাচতেঃ

খুশকি দূর করতে লেবুর জুড়ি নেই । লেবুতে আছে অ্যান্টিসেপ্টিক ও প্রদাহরোধী উপাদান যা মাথার ত্বকে পরিষ্কার করে খুশকি ও রুক্ষতার বিরুদ্ধে কাজ করে। এটা উচ্চ পিএইচ সমৃদ্ধ যা চিটচিটেভাব কমায় ফলে খুশকি দূর হয়।

অ্যালো ভেরা জেলের সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে চুলের গোড়ায় ব্যবহার করুন। এটি আপনার মাথার ত্বক পরিষ্কার করবে । ২০ মিনিট অপেক্ষা করে মৃদু শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন ও কন্ডিশনার ব্যবহার করুন। এতে খুশকি কমার পাশাপাশি চুলের গোড়া শক্ত হবে, চুল পড়া কমবে।

ত্বকের উজ্জ্বলতায়ঃ

অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট হিসেবে কাজ করে বিধায় লেবুর ভিটামিন সি ত্বকের ক্ষয় দূর করে এবং অকালে বয়সের ছাপ পড়া থেকে রক্ষা করে। আবার এর অ্যান্টিসেপ্টিক উপাদান ত্বকের মৃতকোষ এবং ব্রেক আউট দূর করে। ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে নিচের প্যাক টি তৈরি করে ব্যবহার করতে পারেন ।

লেবুর রস ডাবের পানির সঙ্গে মিশিয়ে ত্বকে ব্যবহার করে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। তারপর পরিষ্কার পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এটা তৈলাক্ত ত্বকে খুব ভালো কাজ করে। আবার যাদের ত্বক শুষ্ক ত্বক মসৃণ করার জন্য তারা ডাবের পানির সঙ্গে মধু মিশিয়ে ত্বকে ব্যবহার করুন ।

দাঁত পরিষ্কার করতেঃ

দাঁত পরিষ্কার করতেঃ

ঝকঝকে সাদা দাঁত মানেই সুন্দর হাসি। দাঁত পরিষ্কার ও সাদা করতে লেবুর তৈরি ‘হোয়াইটেনিং প্যাক’ বেশ কার্যকর। বেকিং সোডা ও লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন এবং তা দাঁতের ওপরে পাতলা করে প্রলেপ দিয়ে রাখুন। এরপর টুথব্রাশের সাহায্যে দাঁত মেজে নিন এবং পরিষ্কার পানি দিয়ে মুখ পরিষ্কার করে ফেলুন। দাঁত ঝকঝক করবে। যারা পান তামাক ইত্যাদি খান তাদের জন্য বিশেষ উপকারী এই পদ্ধতিটি ।

নরম ঠোঁট পেতেঃ

নরম ঠোঁট

ঠোঁটের শুষ্ক ও মলিন ভাব দূর করতে কার্যকরি উপাদান লেবু । লেবুর রস ও বাদামি চিনি মিশিয়ে স্ক্রাব তৈরি করে ঠোঁটে মেখে নিন । কিছুক্ষণ রেখে দিন । আপনার ঠোঁট হয়ে উঠবে নরম তুলতুলে । চিনির দানাদার অংশ সরাসরি এক্সফলিয়েটরের কাজ করে। লেবু ও চিনির সংমিশ্রণ ত্বকের মৃত কোষ দূর করতেও ব্যবহৃত হয় । এই ধরনের আরও পোষ্ট পেতে আমাদের poramorso24.com নিয়মিত ভিজিট করুন । ধর্যসহকারে পড়ার জন্য ধন্যবাদ।

আরও পড়ুন

  1. মৌমাছি বা বোলতার কামড়ে ঘরোয়া চিকিৎসা
  2. চিরতরে কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করার ঘরোয়া উপায়
  3. কিভাবে শীতকালে শিশুর যত্ন নেবেন। স্বাস্থ্য টিপস
  4. আগুনে পুড়ে গেলে প্রথমেই যে চিকিৎসা করবেন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *